সাধারণ জনগণের ভূর্ভোগ বেড়েই চলেছে

তাড়াইলে নির্বাচন অফিসে মিলছে না কাঙ্খিত সেবা

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি

১৪ মার্চ, ২০২২ ০৭:৩৪ পূর্বাহ্ন

তাড়াইলে নির্বাচন অফিসে মিলছে না কাঙ্খিত সেবা

কিশোরগঞ্জের তাড়াইলে উপজেলা নির্বাচন অফিসে সেবা গ্রহীতাদের দূর্ভোগ বেড়েই চলেছে। ভোটার এলাকা স্থানান্তর, নতুন ভোটার অন্তর্ভূক্তি, জাতীয় পরিচয়পত্র সংশোধন সহ বিভিন্ন সেবা নিতে সরকারি নির্ধারিত ফি ছাড়া অতিরিক্ত অর্থ হাতিয়ে নিলেও সময়মতো সেবা না পেয়ে হয়রানির শিকার হচ্ছেন সাধারণ জনগণ। এ ব্যাপারে ভূক্তভোগী বিভিন্ন গ্রামের কয়েকজন উপজেলা প্রেস ক্লাবে অভিযোগ করেন।

ওই অভিযোগের প্রেক্ষিতে রোববার (১৩মার্চ) বেলা ১২টার দিকে উপজেলা নির্বাচন অফিসে সরেজমিনে দেখা যায়, নির্বাচন অফিসের নীচতলায় কলাপসিবল গেইটে তালা ঝুলছে। কয়েকজন সেবা গ্রহীতা গেইটের সামনে কাগজ হাতে  সেবা নেয়ার জন্য অপেক্ষা করছে। তাদের একজন উপজেলার রাউতি থেকে আসা যোবায়ের আহম্মদ জানান, আমার জাতীয় পরিচয়পত্র সংশোধন করার জন্য ২০১৫ সালে সরকারি ফি ছাড়াও অতিরিক্ত টাকা দিলেও বিগত ৭ বছরেও সংশোধিত জাতীয় পরিচয়পত্র মিলেনি। আজ নয় কাল এভাবেই সময়ক্ষেপন করে চলছেন নির্বাচন অফিসের কর্মকর্তাসহ অন্যান্য কর্মচারীরা । দিনের পর দিন, মাস ও বছর পেরুলেও হয়রানির শিকার হতে হয় নির্বাচন অফিসে।

উপজেলার পংপাচিহা গ্রামের আবদুল খালেকের অভিযোগ- নিজের জাতীয় পরিচয়পত্র হারিয়ে গেলে থানায় সাধারণ ডাইরি করেন। প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সহ নির্বাচন অফিসে জমা দিলেও মাস পেরিয়ে বছর গেলেও পাচ্ছেন না কাঙ্খিত সেবা।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা এনামুল হক উপর তলা থেকে নীচে তালা ঝুলানো কলাপসিবল গেটের ভিতর থেকে জানান, আমাদের অফিসে কিছু প্রয়োজনীয় কাজ করতেছি। সাধারণ জনগনের আসা যাওয়ায় কাজের বিঘ্ন ঘটে বিধায় তালা ঝুলিয়ে কাজ করতে হচ্ছে।জনগণের সেবা দেয়ার জন্যই সরকার আপনাদের নিয়োগ দিয়েছেন, জনসেবায় আপনাদের বিঘ্ন হবে কেন? তাছাড়া অফিস খোলার দিনে তালা ঝুলিয়ে ভিতরে কাজ করার কথা না থাকলেও কোন আইনে এমনটা করছেন- জানতে চাইলে তিনি বলেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশনায় আমরা দুই দিন জনসাধারণকে সেবা না দিয়ে অফিসের আভ্যন্তরীণ কাজ করতে হচ্ছে।

এ ব্যাপারে জানার জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা লুবনা শারমীনের কার্যালয়ে গিয়ে তাকেও পাওয়া যায়নি। মুঠোফোনে জানতে চাইলে তিনি নিজের অসুস্থতার কথা জানিয়ে বিষয়টি খতিয়ে দেখবেন বলে জানান।




স্পেশাল রিপোর্ট - এর আরো খবর

দুই মেয়েকে নিয়ে এক মায়ের সংগ্রাম

দুই মেয়েকে নিয়ে এক মায়ের সংগ্রাম

১৪ মার্চ, ২০২২ ০৭:৩৪ পূর্বাহ্ন

মেট্রোরেল বদলে দিয়েছে ঢাকাবাসীর জীবনচিত্র

মেট্রোরেল বদলে দিয়েছে ঢাকাবাসীর জীবনচিত্র

১৪ মার্চ, ২০২২ ০৭:৩৪ পূর্বাহ্ন